মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল ২০২৪, ০৯:৫৩ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
Logo কাজী নাসরিনের প্রার্থীতা ঘোষণা Logo অ্যাডভোকেট আরিফা আক্তার বিথির আনুষ্ঠানিক প্রার্থী ঘোষণা Logo তাহারা কি আই‌নের উ‌র্দ্ধে ? ফ‌রিদুল মোস্তফা Logo কালকিনি (মাদারীপুর) উপজেলার বাঁশগাড়ী ইউনিয়নের ঐতিহ্যবাহী খাসেরহাট সৈয়দ আবুল হোসেন স্কুল এন্ড কলেজের প্রাক্তন ছাত্রছাত্রীদের পুনর্মিলনী অনুষ্ঠান -২০২৪ অনুষ্ঠিত Logo মাদারীপুর ৩ আসনের এমপি মোছাম্মৎ তাহমিনা বেগমের আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিমের সাথে ঈদ পরবর্তী সৌজন্য সাক্ষাৎ ও শুভেচ্ছা বিনিময় Logo মাদারীপুরের কালকিনির রমজানপুর ইউনিয়নে “আব্দুর রব তালুকদার -মাহমুদা বেগম ফাউন্ডেশন” এর ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ Logo ঢাকাসহ ৭ অঞ্চলে ৮০ কিলোমিটার বেগে ঝড়ের আভাস Logo বাড়ি ফিরছে মানুষ, ফাঁকা হচ্ছে ঢাকা Logo গুরুত্বপূর্ণ সীমান্ত শহর হারাল মিয়ানমার জান্তা, বাঁচলো আত্মসমর্পণ করে Logo ব্রাজিলের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ঢাকায়

আন্দোলনে গুলিবিদ্ধ কৃষকের মৃত্যু, দিল্লি যাত্রা স্থগিত

আন্তর্জাতিক নিউজ ডেস্ক / ১৯
আপডেট : বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ১০:২৪ পূর্বাহ্ণ

ভারতে আন্দোলনরত কৃষকদের ‘দিল্লি চলো’ অভিযান দুদিনের জন্য স্থগিত করা হয়েছে। তবে তাদের অবস্থান কর্মসূচি ও বিক্ষোভ আগের মতো চলতে থাকবে। 

এর আগে, পুলিশের হামলায় এক কৃষক নিহত হয়েছেন। আহতাবস্থায় তাকে পাতিয়ালা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানকার চিকিৎসক জানিয়েছেন, তার শরীরে বুলেটের চিহ্ন ছিল।

স্থানীয় গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়, নিহত ওই কৃষকের নাম শুভ করন সিং। পাতিয়ালা হাসপাতালে তিনজনকে আনা হয়। কিন্তু আনার পরেই একজনের মৃত্যু হয়। তবে অন্য দুজনের শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল রয়েছে। তাদের শরীরেও বুলেটের ক্ষতচিহ্ন রয়েছে।

 

কেন্দ্রীয় সরকারের সঙ্গে চতুর্থ দফার আলোচনা ভেস্তে যাওয়ার পর পাঞ্জাব–হরিয়ানার শম্ভু সীমান্তে জড়ো হওয়া কৃষকেরা বুধবার সকাল থেকে নতুন উদ্যমে যাত্রা শুরু করেন। তাদের গন্তব্য ২০০ কিলোমিটার দূরে রাজধানী নয়াদিল্লি।

এদিকে, কৃষকদের সংগঠন অল ইন্ডিয়া কিষান সভার অভিযোগ পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষের জেরেই ওই কৃষক নিহত হয়েছেন। তবে হরিয়ানা পুলিশ এমন অভিযোগ মানতে চায়নি। সামগ্রিক পরিস্থিতি বিবেচনায় নিয়ে দুদিনের জন্য দিল্লি যাত্রা স্থগিত করেন আন্দোলনকারী কৃষকরা। তবে তাদের অবস্থান কর্মসূচি ও বিক্ষোভ আগের মতো চলতে থাকবে।

এদিকে কেন্দ্রীয় কৃষিমন্ত্রী অর্জুন মুন্ডা কৃষকনেতাদের নতুন করে আলোচনার প্রস্তাব দেন। মন্ত্রী অর্জুন মুন্ডা বলেন, “আমি সব সংগঠনকে শান্তি বজায় রাখার অনুরোধ জানাচ্ছি। আলোচনার মধ্য দিয়েই আমাদের সমাধানে পৌঁছাতে হবে। তাই আলোচনায় যোগ দেয়ার অনুরোধ করছি।”

মন্ত্রী আরও বলেন, “আমরা কিছু প্রস্তাব দিয়েছিলাম। জানতে পারলাম কৃষকনেতারা তাতে সন্তুষ্ট নন। আমরা এ আলোচনা অব্যাহত রাখতে চাই। শান্তিপূর্ণভাবেই আমাদের সমাধান খুঁজতে হবে।”

সরকার যে প্রস্তাব দিক, কৃষকনেতারা এমএসপি’র আইনি বৈধতার দাবিতে অনড়। তারা জানিয়েছেন, ২৩টি ফসলের এমএসপি নিশ্চিত করা তাদের প্রধান দাবি। ওই সূত্রে বলা হয়েছে, চাষের সব ধরনের উপকরণ খরচ যেমন বীজ, সার, পানি, বিদ্যুতের সঙ্গে পরিবারের সবার শ্রমের মূল্য ধরে মোট উৎপাদন খরচ যা হবে, তার সঙ্গে আরও ৫০ শতাংশ যুক্ত করলে যা দাঁড়াবে, সেটাই হবে এমএসপি বা ন্যূনতম সহায়ক মূল্য। সেটাই সরকারকে আইনি বৈধতা দিতে হবে। কৃষকনেতারা সরকারকে জানিয়ে দেন, তারা ২৩টি পণ্যেরই এমএসপি চান। শুধু ডাল, ভুট্টা ও তুলার জন্য নয়।


এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

Theme Customized By Theme Park BD