সোমবার, ২৪ জানুয়ারী ২০২২, ০১:০৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :

পিতার বিপক্ষে পুত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী হবার দৌড়ঝাপ

এখনই সময় ডেস্ক / ৬৯
আপডেট : বৃহস্পতিবার, ৭ অক্টোবর, ২০২১, ৮:২৬ পূর্বাহ্ণ

শরীয়তপুর প্রতিনিধি
শরীয়তপুর জেলা গোসাইরহাট উপজেলা গোসাইরহাট ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে পিতাকে টপকিয়ে ছেলে প্রার্থী হওয়ার দৌড়ে ঝাপ।
আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে গোসাইরহাট ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বর্তমান চেয়ারম্যান মুজাফফর হোসেন সরদারকে বাদ রেখেই তার বড় ছেলে আসাদুজ্জামান রিপন প্রার্থী হওয়ার জন্য লবিং তদবির শুরু করেছেন। মুজাফফর সরদার গত নির্বাচনে নৌকা প্রতীক নিয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন।
এর পরের ইতিহাস খুবই দুঃখজনক ও কলঙ্কিত অধ্যায়। তিনি নির্বাচিত হওয়ার পর ভুলেই গেছেন যে তিনি জনগনের প্রতিনিধি। ইউনিয়নে উন্নয়নের ছোয়া না লাগলেও একাধিক বৈবাহিক জীবনের অধিকারী চেয়ারম্যান হওয়ায় তার জীবনের উন্নয়ন হয়েছে। চেয়ারম্যান এলাকায় বিকাশ চেয়ারম্যান হিসাবেও সুপরিচিত লাভ করে। তিনি বিভিন্ন উন্নয়নের কাজ মেম্বারদের দেওয়ার কথা বলে কমিশনের টাকা আগে নিয়ে নেয়। সরকারে দেয়া গরীবের মাথাগোঁজার যে ঘর গুলো বিনামূল্যে দেয়ার কথা থাকলেও শতাধিক লোকদের নিকট থেকে হাতিয়ে নিয়েছেন কয়েক লাখ টাকা। গভীর নলকূপ দেয়ার কথা বলেও অনেকের নিকট থেকে টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। এরকম অভিযোগ গোসাইরহাট ইউনিয়ন বাসীর। তার চরিত্রের ডুপ্লিকেট কপি তার তৃতীয় সন্তান মোঃ রফিকুল ইসলাম ওরফে মাওলানা রফিক। তার স্বাক্ষর জাল করে বহু মানুষকে দিয়াছে চেয়ারম্যানের প্রত্যয়ন পত্র। মাওলানা রফিক চেয়ারম্যানে অনুপস্থিতিতে ইউনিয়ন পরিষদে খবরদারি করে। এলাকাবাসীর সাথে কথা বলে আমাদের প্রতিনিধি আরো বেশ কিছু তথ্যের খবর পায় যা খুবই ঘৃণিত।
তারই বড় ছেলে আসাদুজ্জামান রিপন বর্তমানে মনোনয়ন পাওয়ার জন্য ঢাকা সহ জেলা উপজেলার নেতাদের দরজায় কড়া নারছে। এলাকাবাসীর সাফ কথা পিতার কথা মনে করলে সন্তান থেকে এভাবেই মানুষ মুখ ফিরিয়ে নিবে। চেয়ারম্যান ভালো কিছু করলে তার সন্তান থেকেও ভালো কিছু আশা করা সম্ভব। পিতার কৃতকর্মের মাশুল দিবে তার সন্তানরা। এলাকাবাসীর একটাই দাবি যোগ্য লোক আসলে আমরা তাকে গ্রহন করতে প্রস্তুত। অযোগ্য লোক এলাকার জনগন গ্রহন করবেনা।


আপনার মতামত লিখুন :

Comments are closed.

এ জাতীয় আরও খবর
Theme Customized By Theme Park BD
%d bloggers like this:
%d bloggers like this: